PDA

View Full Version : ভারত-চীন যুদ্ধ ১৯৬২



مصعب بن عمير
12-11-2019, 12:41 AM
https://scontent.xx.fbcdn.net/v/t1.0-9/fr/cp0/e15/q65/40671938_1922710611366403_6343981177992380416_n.jp g?_nc_cat=101&_nc_ohc=3GtY5TJtB2EAQnZTLd7_D9IA-YWn8yjOOWoFzKlvUldK7w5mSK4JhUIYg&_nc_ht=scontent.xx&oh=8245a7f3e28b4acc4a8c0a39323d3bbe&oe=5E83472D https://scontent.xx.fbcdn.net/v/t1.0-9/fr/cp0/e15/q65/40598949_1922710654699732_1029059599887499264_n.jp g?_nc_cat=109&_nc_ohc=GHDhRt6yTK4AQnc8zb7B5Nr6MMeJOBc7ILlx1efl81 BAUOtNjdFrW-_0g&_nc_ht=scontent.xx&oh=bcce8be05867f09b133c49afab9ee6a4&oe=5E6A3A23


ভারত ও চীনের মধ্যে ১৯৬২ সালে সংঘটিত হয় যুদ্ধ মুলত সীমানা নিয়ে বিরোধ থেকে এই যুদ্ধের সূত্রপাত হয়। যুদ্ধে চীনের কাছে ভারত শোচনীয়ভাবে পরাজিত হয়। চীন তিব্বত দখল করার পর ভারতের বর্তমান অরুণাচল প্রদেশ ও আকসাই চীনকে চীনের নিজের এলাকা বলে দাবী করে আর এইভাবেই সীমান্ত সমস্যার শুরু হয় তা শেষ পর্যন্ত যুদ্ধের সূচনা করে। যুদ্ধে চীন জয়ী হয়ে ভারতের বিরুদ্ধে একতরফা যুদ্ধবিরতি জারি করে, আকসাই চীন নিজের দখলে রাখে কিন্তু আন্তজাতিক চাপে অরুণাচল প্রদেশ ফিরিয়ে দেয় যুদ্ধে সোভিয়েত ইউনিয়ন ও যুক্তরাজ্য ভারতকে সমর্থন করে, কিন্ত আমেরিকা চুপ থাকে ও অনেকটা চীনকে সাপোর্ট করে অন্যদিকে পাকিস্তান চীনের সঙ্গে মিত্রতা বাড়াতে সচেষ্ট হয় । চীন শুধু অরুণাচল দখল করেই সীমাবদ্ধ থাকেনি আসামের রাজধানী গোহাটি অবধি চলে এসেছিল। চীন ইচ্ছা করলে সমস্ত সেভেল সিস্টার্স বিচ্ছিন্ন করে দিতে পারতো। তবে চীনের এত সাফল্য আসার পিছনে ভারতের নীতি গত কিছু ভুল ছিল। নেহেরুকে বিমান শক্তি প্রয়োগ করার কথা বললেও তিনি রহস্যময় ভাবে সেটার অনুমোদন দেননি। ফলে সেখানে স্থল যুদ্ধে ভারতীয় সেনারা তীব্র প্রতিরোধ গড়ে তুলতে পারেনি। তবে চীনের ভবিষ্যৎ প্লানিং আজকের মতো হলে তারা সেভেন সিস্টার্স বিচ্ছিন্ন করেই দিত।

এই যুদ্ধে ভারতের আকসাই চীন এলাকাটি চীন পুরাটাই দখল করে নেয় !

আকসাই চীন ছিল ভারতের একটি অংশ যার আয়তন প্রায় ৩৭,৫০০ হাজার বর্গ কিলোমিটার যার পুরাটাই এখন চীনের দখলে।
চায়না আসলে দখলকৃত অরুণাচল ও বাকি জায়গাও রেখে দিতে পারত। না দিলেও ভারত কিছুই করতে পারতনা কিন্ত তারা মানবিক কারনে হয়ত ফিরিয়ে দেয়।

চীনের ভারতের সাথে যুদ্ধ করা নিয়ে গবেষকদের ধারণাঃ-

যুদ্ধের মূল কারণ হিসাবে গবেষকেরা উল্লেখ করেন চীনের জিঞ্ছিয়াঙ অংশের দাবী করা অক্সাই চিনের মধ্যে তিব্বত এবং জিঞ্ছিয়াং কে সংযোগীকারী একটি পথ আছে। চীন এই পথ নির্মাণ করার প্রয়াস চালালে যুদ্ধের আরম্ভ হয় । আর পরে এই পথ ভারতের কাছ থেকে দখল করে চীন তিব্বতে নিজের অবস্থান আরও শক্ত করে !

একই প্রয়াসে চীন ১৯৭৬ সালে সদ্য স্বাধীনতা পাওয়া দুর্বল ভিয়েতনামে আরও বেশী সেনা ও সমরাস্ত্র নিয়ে হামলা চালায়। কিন্ত উল্টো জায়গা দখল দূরে থাক চীনের নিজের অনেক জায়গায় দখল করে ফেলে ভিয়েতনামের সেনারা! পরাজয়ের স্বাদ নিয়ে মাত্র ১ মাসে প্রায় ৫০ হাজার সেনা হারিয়ে ভিয়েতনাম ছাড়তে হয় চীনকে। এমনকি চীনের দালাল কম্বোডিয়াকে একই সময় দখলে নিয়ে উচিৎ শিক্ষা দেয় ভিয়েতনাম। তাই আয়তন ও শক্তিই আসল জিনিষ নয় যুদ্ধে জয়ের মূলে থাকে সাহস ও কৌশল।

(ছবিতে চীনের সাথে পরাজয়ের পর কথা বলছেন নেহেরু ও চীনের কাছে আন্তঃসমর্পণ করা ভারতীয় সেনা )

abu ahmad
12-11-2019, 08:09 PM
ইনশা আল্লাহ, গাযয়াতুল হিন্দের মুজাহিদ সৈনিকদের হাতেও ভারতের পরাজয় হবে!