PDA

View Full Version : নতুন যুগের নতুন ফেতনা,এবং আমাদের যা করতে হবে ।



Tahmid
05-04-2016, 10:19 PM
নতুন যুগ এখন নতুন ফেতনা নিয়ে সামনে এসেছে। জাহেলিয়াত নতুন নতুন রূপে আত্মপ্রকাশ করেছে। আগে ছিলো বিদ'আতের মু'আমালা,কিন্তু এখন শুরু হয়েছে প্রকাশ্য মূর্তি পূজার মোকাবেলা। আগে ছিল সর্বেশ্বরবাদের শ্লোগান, কিন্তু এখন শুরু হয়েছে এক ধর্মবাদের জিগির। শুরু হয়েছে জাতীয়তাবাদ ও গনতন্ত্র ও সমাজবাদসহ বিভিন্ন বাদ-মতবাদের নতুন নতুন ধর্ম। এগুলো এখন আমাদের ধর্মীয় চেতনা, আমাদের দীনি গায়রাত এবং আমাদের তাওহীদী আতীদাকে চ্যালেঞ্জ করেছে। এখন দেখার বিষয় এই যে, এক সময় যারা সামান্য বিদ'আত ও রসম-রেওয়াজকে ছাড় দিতে প্রস্তুত ছিল না, তাদের উওরাধিকারীরা এই সব শিরক ও কুফুরীকে কীভাবে বরদাশত করে এবং এগিলোর মোকাবেলায় তাদের নীতি ও অবস্থান কেমন হয়? আমরা তো আমাদের মহান পূর্ববর্তীদের দীনি হিম্মত ও সাহসিকতা, দীনি গায়রাত ও চেতনার তথা মুক্ত কন্ঠে স্বীকার করি এবং দ্ব্যর্থজীন ভাসায় সাক্ষ্য দিই যে, বাতিলের সামনে তারা নত করেননি। এখন দেখার বিষয় এই যে, আমাদের সম্পর্কে আমাদের পরবর্তীররা কী সাক্ষ্য দেবে ? এবং ইতিহাসের পাতায় আমরা কী স্বাক্ষর রেখে যাচ্ছি ? আমার দীনি ভাইয়েরা, আসমানী তাকদীরের ফায়সালা আমাদের জন্য যে যুগ ও সময় নির্বাচন করেছে তার দায়-দায়ীত্ব বিগত সময়ের তুলনায় অনেক বেশী। তবে আল্লাহর দরবারে তার প্রতিদান ও সম্মানও অনেক বেশী। ঝুঁকি ও ক্ষতির ভয়ে দায়িত্ব এড়িয়ে যাওয়া এবং সময়ের পতিকূলতার কাছে পরাজয় স্বীকার করা সাহসী পুরুষের কাজ নয়, বরং কাপুরুষের কাজ। তোমাদেরকে অবশ্যই সাহসের পরিচয় দিতে হবে এবং এগিয়ে আসতে হবে আগামী দিনের দায়িত্ব গ্রহণের জন্য। তোমাদের হাতে এখনো যতটুকু সময় আছে সেটাকে প্রস্তুতির কাজে ব্যয় করো। সময়ের গুরুতরতা এবং দায়িত্বের গুরুত্ব উপলব্দি করো এবংশ নিজেকে মূল্যবান ও ফলবানরূপে তৈরী করো,যাতে আগামী দিনের কর্মের ময়দানে উম্মতের সৌভাগ্য নির্মানে গৌরবময় অবদান রাখা সম্ভব হয়। কবির ভাষায় - 'গাফেল হয়ো না, সময় কারো জন্য বসে থাকে না।' প্রিয় ভাইয়েরা ! এ যুগের আসল ফেতনা ও চ্যালেঞ্জ কি ? তা এই যে, ইসলামকে তার নিজস্ব তাহযীব-তামাদ্দুন,নিজস্ব সমাজ-সংস্কৃতি, নিজস্ব শিক্ষা-ব্যবস্থা এবং নিজস্ব ভাষা, সাহিত্য ও কৃষ্টি থেকে এক কথায় ইসলামকে তার সমগ্র উওরাধিকার সম্পদ থেকে বিচ্ছিন্ন করার ভয়ণ্কর ষড়যন্ত্র শুরু হয়েছে, যাতে অন্যান্য ধর্ম ও ধর্মসম্প্রদায়ের মত ইসলাম ও মুসলিম জাতিও কতিপয় ইবাদত ও আচার-অনুষ্ঠানের গন্টিতেই সীমাবদ্ধ হয়ে পড়ে। বিয়ে-শাদী ও দাফন-জানাযার রুসুমাত নিয়েই দুষ্ট থাকে। এভাবে ইসলাম যেন নিছক আচার-প্রথার ধর্মে পরিণত গয় এবং চিরদিনের জন্য মুসলমান যেন ভুলে যায় যে, ইসলাম একটি পূর্ণাঙ্গ জীবন বিধান। এজন্য সর্বদা আমাদেরকে তাদের মুকাবলায় কাজ করে যেতে হবে। আল্লাহ আমাদের তৌফিক দান করুক । আমিন !!

Al-Fares
05-05-2016, 12:38 AM
জাযাকাল্লাহ আখি

paharisontan
05-05-2016, 08:43 AM
tahmid vai ageye colon amra achi tumar sathe zajakallah