PDA

View Full Version : আল্লাহকে কটুক্তিকারী শিক্ষক শ্যামল কান্তির বিচার না করলে কঠোর আন্দোলন



rafsan
05-21-2016, 08:13 PM
http://insaf24.com/wp-content/uploads/2016/05/2016-05-20_183203.jpg
৭২ ঘণ্টার মধ্যে মহান আল্লাহকে নিয়ে কটুক্তিকারী শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তের বিচার না করলে সড়ক-মহাসড়কসহ সারাদেশে অচল করে দেওয়ার হুমকি দিয়েছে নারায়ণগঞ্জের সর্বস্তরের মুসলিম জনতা।

তারা বলেছেন, আল্লাহকে কটূক্তি করার সূত্র ধরেই ওই ঘটনার সূত্রপাত। এ কারণে ওই শিক্ষকের কঠোর শাস্তি নিশ্চিত করতে হবে আগামী ৭২ ঘণ্টার মধ্যে। একই সময়ে শিক্ষককে পুনর্বহালের সিদ্ধান্ত বাতিলসহ শিক্ষামন্ত্রী পদত্যাগ না করলে নারায়ণগঞ্জ থেকে হরতাল, অবরোধসহ কঠোর আন্দোলনের ঘোষণা করা হবে।

শুক্রবার দুপুরে জুমআর নামাজের পর শহরের ডিআইটি মসজিদের সামনে বঙ্গবন্ধু সড়কে নারায়ণগঞ্জের সর্বস্তরের মুসলিম জনতা ইসলামকে কটূক্তির প্রতিবাদে ওই সমাবেশে এই আলটিমেটাম দেওয়া হয়। পরে একটি মিছিল শহরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে।

এদিকে জুমআর নামাজের পর থেকেই শহরের বিভিন্ন মসজিদ থেকে হাজার হাজার মুসল্লি মিছিল নিয়ে বৃষ্টির মধ্যে ওই সমাবেশে যোগ দিতে থাকে। দুপুর ২টা থেকে বিকেল সোয়া ৩টা পর্যন্ত ওই সমাবেশে বৃষ্টির মধ্যেই হাজার হাজার মানুষ উপস্থিত হন।

সভাপতির বক্তব্যে নারায়ণগঞ্জ জেলা হেফাজতে ইসলামের সভাপতি ও শহরের অন্যতম বৃহৎ ডিআইটি জামে মসজিদের খতিব মাওলানা আবদুল আউয়াল বলেন, যে ঘটনা নিয়ে সূত্রপাত আমরা ইতোমধ্যে সেই ছেলের (রিফাত) সঙ্গে কথা বলেছি। সে মসজিদে বসে আমাদের কাছে স্বীকার করেছে যে- ইসলাম নিয়ে ওই শিক্ষক কটূক্তি করেছেন। তাই নারায়ণগঞ্জের মুসলিম জনতা এ ব্যাপারে আর বসে থাকছে না। আগামী ৭২ ঘণ্টার মধ্যে যদি শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তের শাস্তি, শিক্ষামন্ত্রীর পদত্যাগ এবং শিক্ষক পুনর্বহালের সিদ্ধান্ত বাতিল না হয় তাহলে নারায়ণগঞ্জে কঠোর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে। ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ করে সারাদেশ অচল করে দেওয়া হবে।

মাওলানা আবদুল আউয়াল বলেন, আমাদের একটি টিম শুরু থেকে পুরো বিষয়টি পর্যবেক্ষণ করেছেন। প্রকৃত ঘটনা বের করতেই আমরা তদন্ত শুরু করি। ঘটনাস্থল বন্দরের কল্যান্দীতে আমাদের টিম যায়। সেখানে তারা প্রকৃত সত্য বের করার চেষ্টা করে এবং আরও লোকজনদের সঙ্গে কথা বলেন। সবশেষ বৃহস্পতিবার আমরা ৪০-৫০ জন ইমাম ও আলেম দ্বীনেরা মসজিদে রিফাতকে ডেকে আনি। সে পুরো ঘটনার বিবরণ দিয়ে জানায়- ওই শিক্ষক নাকি আল্লাহকে কটূক্তি করে বলেছেন তুইও নাপাক তোর আল্লাহও নাপাক।

সমাবেশে যে ছাত্রকে নিয়ে ঘটনার সূত্রপাত সেই রিফাত হাসানও উপস্থিত ছিলেন। এসময় ঘটনার বিবরণ দেন রিফাত এবং শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্ত ইসলাম নিয়ে কটূক্তির বিবরণ দিয়ে জনসম্মুখে রিফাত জানায়, হেড স্যার ক্লাসে ছেলেমেয়েদের খারাপ ভাষায় গালিগালাজ করেন। এক পর্যায়ে আমাকে বলেন- তুইও নাপাক তোর আল্লাহও নাপাক। পরে হেড স্যার আমাকে মারধর করেন। আমি ব্যথা পাওয়ায় আল্লাহ আল্লাহ বলতে থাকলে হেড স্যার বলেন- আল্লাহ বলতে কিছু নাই।

রিফাত আরও জানায়, আমাকে মারধর করেছে সেটার বিচার চাই না, আল্লাহকে গালি দিয়েছে- আমি তার বিচার চাই। প্রধান শিক্ষক আমাকে মারধর করছে কিন্তু শিক্ষামন্ত্রী এর বিচার করে নাই।

http://insaf24.com/wp-content/uploads/2016/05/ff190cfb6.jpg

সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন জেলা হেফাজতের সদস্য সচিব মাওলানা আবদুল কাদির, জেলার সমন্বয়ক ফেরদাউসুর রহমান, ওলামা পরিষদের আহ্বায়ক মুফতি আবুল হাশেম, মাওলানা এনায়েত উল্লাহ আব্বাসী, মুফতি দেলোয়ার হোসেন, মুফতি হারুন অর রশিদ, মুফতি সিরাজুল ইসলাম, মাওলানা আনিস আনসারী, মাওলানা আব্দুল লতিফ।

গত ৮ মে নারায়ণগঞ্জ বন্দর উপজেলার পিয়ার সাত্তার স্কুলে রিফাত হোসেন নামের স্কুলছাত্রকে মারধরের সময়ে ক্লাসরুমে ইসলাম ধর্ম নিয়ে কটূক্তি করে হিন্দু প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্ত। ওই ঘটনার জের ধরে ১৩ মে স্কুলের প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তকে গণপিটুনি এবং পরে তাকে উদ্ধারের সময়ে কান ধরে উঠবোস করান এমপি সেলিম ওসমান।

ছাত্র রিফাত হাসান বিবিসি বাংলাকে ধর্মীয় কটূক্তির বিষয়টি স্বীকার করে বক্তব্য দেন। বৃহস্পতিবার সকালে এমপি সেলিম ওসমান সংবাদ সম্মেলনে ধর্মীয় কটূক্তি হয়েছে দৃঢ়কণ্ঠে জানিয়ে বলেন, ইসলামকে কটূক্তি করার কারণেই একজন কটূক্তিকারকের শাস্তি দেওয়া হয়েছে। কোনও শিক্ষককে আমি শাস্তি দেই নাই। তাই ক্ষমা চাওয়ার প্রশ্নই নেই। আমি কার কাছে ক্ষমা চাইব, যিনি আল্লাহকে কটূক্তি করেছেন? তবে আমি লজ্জিত এবং সমাজের কাছে দুঃখিত যে তারা এমন একটি ভিডিও দেখেছেন যাতে তারা আমাকে ভুল বুঝেছেন। আদালত রুল জারি করেছেন, এখন আদালত যদি আমার ফাঁসিও দেন, তাহলেও আমি আপত্তি করব না। তবে আমি এটা মনে করব যে, জাহান্নামের আগুন থেকে আমি বেঁচে গেছি।

polashi
05-23-2016, 04:54 AM
কঠোর আন্দোলন কি গণতান্ত্রিক পন্থায় ?

altamash
05-23-2016, 05:22 AM
এইযে শুরো হল আরেক ভণ্ডামি