PDA

View Full Version : হে ইরজায় আক্রান্ত ব্যক্তি, সতর্ক হও



ibn mumin
08-20-2016, 11:18 AM
বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম,
আসসালাতু আসসালামু ওলা রাসুলিল্লাহ, ওয়া আসহাবিহী আজমাঈন। আম্মাবাদ।

আজ তৃপ্তির ঢেঁকুর তুলা হচ্ছে এটা দেখে, যে এই জঙ্গি মার্কা ছেলেটা যে এত দিন আমাদেরকে জিহাদ এখন ফরযে আইন বলছিল তাকে তাগুতের বাহিনী তুলে নিয়ে গিয়েছে। আর বলা হচ্ছে, দেখছ আমাদের বড়দের কথার বিপরীতে কাজ করলে আল্লাহর গযব ক্যামনে পড়ে আরও বলা হচ্ছে অহ ও এই ছেলের তো আমাদের শায়খ এর চেয়ে বেশি আকিদা ক্লিয়ার ছিল , দেখছ ক্যামনে আযাব পড়ছে! আরও বলা হচ্ছে এহ দেখছ কারবার মাইয়া মানুষও আবার জঙ্গিগিরি করে !
হে ইরজায় আক্রান্ত ব্যক্তি সবর কর ধীরে ধীরে তোমারও সিরিয়াল আসছে। আজ যদি ৫ই মে এর পর আল্লাহর ইচ্ছায় আনসার আল ইসলামের ভাইদের ধারালো আক্রমণগুলো না হত তাহলে দেখতে তোমার মাদ্রাসার প্রতিটি ইট খুলে নেয়া হত, যার দ্বারা তুমি ব্যাবসায় লিপ্ত।
আজ যদি আল্লাহর শক্তিতে মুজাহিদিনরা আক্রমন না করতো তাহলে হে তাবলিগে গিয়ে পিকনিকে লিপ্ত ব্যক্তি দেখতে তোমাদের এই পিকনিক আর তৈলাক্ত রসালো চেহেরা শুষ্ক হয়ে যেত।
ওহে এসি রুমে বসে বড় বড় আকিদা শিখানে ওয়ালা তোমার এসি তারা রেখে নিত আর গরম রোদে তুমি দাড়িয়ে থাকতে যদি মুজাহিদিনরা আক্রমন না করতো।
ইসলামিস্ট বউ নিয়ে অনলাইনে বড় বড় বুলি কপচানো আনন্দে লিপ্ত ব্যক্তি, ভেব না তোমার ঘর ওয়ালি তাগুতের আক্রমনের শিকার হবে না। সবর কর। আল্লাহ না করুন মিল্লাতে ইবরাহিমের অনুসারীরা যদি এই জমিনে দুর্বল হয়ে পরে তাহলে তোমার সুখের সংসারও ভেঙ্গে যাবে।
হে ইরজায় আক্রান্ত ব্যক্তি তোমাদের অনুরধ করছি চোখ খুলে দেখ, তুমি কিভাবে তোমার শত্রুদের বেষ্টনীতে আবদ্ধ। তুমি ভেব না তুমি তাগুতের বিরুদ্ধে কিছু বল নি দেখে তুমি নিরাপদ। না আল্লাহর শপথ তুমি নিরাপদ না। তারা এক এক করে আক্রমন করবে। তোমার মাদ্রাসা, তোমার পিকনিক, তোমার এসি রুম, তোমাদের মিছিল, ফেসবুকে বড় বড় থিওরি সবই শেষ হয়ে যাবে, যদি তোমরা আজ তোমাদের মুজাহিদিন ভাই বোনদের পাশে না দাড়াও।
ভেব না তোমরা আল্লাহর খুব অনুগ্রহপ্রাপ্ত যার ফলে সুখের সাগরে ভেসে বেড়াচ্ছ। আসলে আল্লাহ তোমাদেরকে কঠিনভাবে পাকড়াও এর আগে ঢিল দিয়ে দিয়েছেন।
তোমাদেরকে অবশ্যই জবাব দিতে হবে যে কি করেছিলে শাতিমদের বিপক্ষে? কি ভাবে আনসার হয়েছিলে মুজাহিদিনদের? কেন জানাজা পায় নি মুজাহিদিনরা? কেন শাতিমের জানাজা পড়ান ব্যক্তিকে কিছু বলা হয় নি? ৪ জন আল্লাহর বান্দিকে শুধু ইসলাম পালনের কারণে ধরে নেয়া হল আর তোমরা কি করেছিলে?আরও অনেক প্রশ্ন।

হে ইরজায় লিপ্ত ব্যক্তি সতর্ক হও, তওবা করে মিল্লাতে ইবরাহিমে ফিরে আসো।
নয়তো সবর কর বাগদাদ, বুখারা আর সমরকন্দের পরিনতি দেখার জন্য।

alif laam meem
09-18-2016, 06:52 PM
এক্কেবারে মনের কথা!
জাজাকাল্লাহু খাইর!

tipo soltan
09-20-2016, 04:37 AM
মাশাআল্লাহ ! আল্লাহ তাআলা আপনার জ্ঞান আরো বাড়িয়ে দিন।
সম্পূর্ণ বাস্তব কথাই বলেছেন।

umar mukhtar
09-20-2016, 04:41 AM
হে ইরজায় লিপ্ত ব্যক্তি সতর্ক হও, তওবা করে মিল্লাতে ইবরাহিমে ফিরে আসো।
নয়তো সবর কর বাগদাদ, বুখারা আর সমরকন্দের পরিনতি দেখার জন্য।

আবু মুহাম্মাদ
09-20-2016, 06:38 AM
দুনিয়ায় তারা কিছু দিন মজা ভূগ করবে হয়ত কিন্তু জিহাদ ছেড়ে দেয়ার শাস্তি অবশ্যই তারা ভোগ করবে।

রক্তাক্ত চাপাতি
09-20-2016, 07:32 AM
দুনিয়ায় তারা কিছু দিন মজা ভূগ করবে হয়ত কিন্তু জিহাদ ছেড়ে দেয়ার শাস্তি অবশ্যই তারা ভোগ করবে।
হে প্রিয় ভাই ,
কাফের মুস্রিকেরা দুনিয়া পাবে বা পাচ্ছে এতে কোন সন্দেহ নেই কিন্তু আমাকে বলুন ভাই আজ যেসকল দরবারি আলেম বা যারাই জিহাদের বিরুধিতা করছে বা জিহাদের বিরুদ্ধে ফতোয়া দিচ্ছে বা এতে সাইন করছে তাদের মধ্যে কতজন ঠিক মতো দুনিয়া পাচ্ছে ?? খোঁজ নিয়ে দেখুন ভাই হাতে গণা অল্প কিছু বেক্তি বা সংগঠনের নীতি নির্ধারকেরাই কেবল কিছু ভোগ করছে আর এদের অনুসারীরা সেই ভোগ-বিলাস থেকে বঞ্চিতই রয়েছে বা থাকবে কেননা তাদের তো নিজেদের উরদিই ভরে না তাই আরেকজনের টার খবর নেওয়ার সময় কই ??

আমার খুব আফসোস হয় , সত্যিই খুব আফসোস হয় কেননা কাফের মুস্রিকেরা তো আখিরাত পাবে না তবে দুনিয়া পাচ্ছে কিন্তু এসকল দরবারি বা নামধারী আলেমেরা তো দুনিয়াও ঠিক মতো পাচ্ছে না আর না আখিরাত

তাই ধিক তারে ধিক , শত ধিক , এরূপ যেজন

Mullah Murhib
09-20-2016, 08:56 AM
আমাকে ইরজায় লিপ্ত এক ব্যক্তি খুব বদদোয়া দিচ্ছিল- বড়দের কথা না শুনলে পরনে লুঙ্গিও থাকবে না, আরও ঈমানবিধ্বংসী অনেক কথা .........যা প্রকাশ করতেও কষ্ট হয়। তার অহমিকার জবাবে আমি কিছু বলতে বাধ্য হয়েছিলাম। আমি বললাম, '' আপনি যে দরবারে বদদোয়া দিচ্ছেন, আমি সে দরবারেই চাকুরী করি।'' এ কথা শুনে একেবারে লা-জওয়াব হয়ে গেল।
এদের নিজেদের মধ্যে নিফাক তো আছেই; অন্যদের উপরও জোর করে নিফাক চাপিয়ে দিতে চায়। একেবারে তাদের মনগড়া চার তরীকার খিলাফত দেওয়ার মতো। মানে আমার পক্ষ থেকে নিফাকি আর মনমতো ব্যাখ্যা করার উপর বায়আত করাতে হবে...। মাথায় আলুর বস্তা তুলে দেওয়ার মতো।

শুদ্ধ বানান
09-20-2016, 09:39 AM
যখন মুজাহিদীনকে ত্বাগুতের বাহিনী তুলে নিয়ে যায় তখন ওরা তৃপ্তির ঢেঁকুর তোলে ।
তাবলীগের আক্বীদা যে, আজ কোথায় গিয়ে দাঁড়িয়েছে আল্লাহই জানে।মিল্লাতে ইবরাহীম থেকে দিন দিন ওরা সরে যাচ্ছে।
একটু দাঁড়াও বাছা... দিন কয়েক পরেই বুঝতে পারবে ইরজার ফলাফল কত ভয়াবহ হয়।

জাজাকাল্লাহ ইবনে মুমিন ভাই!খুব সুন্দর লিখেছেন।আল্লাহ আপনার লেখাকে আরো সুন্দর করে দিন।
এভাবে যদি আমার কাজ চালিয়ে যাই তাহলে কোন সমস্যা হবে কি?
জানাবেন ইনশাআল্লাহ।

Umar Abdur Rahman
09-20-2016, 01:09 PM
মাশা'আল্লাহ ভাই! চমৎকার লিখেছেন...

Mohammad al bengali
09-20-2016, 02:12 PM
জাযাকাল্লাহ ভাই,খুব সুন্দর নসিয়া।

Zakaria Abdullah
09-20-2016, 02:47 PM
মাশাআল্লাহ ! আল্লাহ তাআলা আপনার জ্ঞান আরো বাড়িয়ে দিন।
সম্পূর্ণ বাস্তব কথাই বলেছেন।

banglar omor
09-21-2016, 11:26 AM
জাজাকাল্লাহ!
মাশাআল্লাহ্

murabit
09-21-2016, 01:23 PM
কঠিন বাস্তবতা । কিন্তু এমন কঠিন ভাবে না বলেও উপায় কী,
একজন মাওঃ মাহমুদুল হাছান যাত্রাবাড়ি ওয়ালার হাওয়ালায় বলে যে সুন্নতের উপর আমল করোন , কোন বিপদ আসবেনা।
তখন তাকে বলা হলো রাসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াছাল্লাম কি সুন্নতের উপর আমল করেন নি? তার এতো বিপদ আসলো কেন?
লোকটি ঢাকা ইউনি ভার্সিটির ছাত্র , এতে ও তার চোখ খোলেনি আরো পাগলের আচরন শুরু করেদেয় ফলে বাধ্য হয়ে আমাদেরি চুপ হয়ে যেতে হলো।
বাস্তবা এরা দুনিয়ার পুজারি হয়ে পড়েছে এখন দুনিয়ার সুবিধা অসুবিধাই তাদের সফলতা আর ব্যররথতার মানদন্ড হয়ে দাড়িয়েছে। আপনি মাদ্রাসা বলেন তাবলিগ বলেন খানকা বলেন সব খানে একই মানসিকতা একই দর্শন ছোট বড় সবার মধ্যে হক্কানিয়াতের আলামত হলো ভাল আমদানি জমজমাট অবস্থা ,মালাম্মামদুদা বানীনা শুহুদা,মুল্কমিছরা হাযিহিল আনহারু। এ নিয়েই প্রতিযোগিতা।
বদরে মুসলিমদের বিজয় হয়েছে , ইহুদি আহবাররা ও ইসলামের সত্যতা স্বীকার করে নিতে বাধ্য হয়েছে, সাধারন জনতা ইসলামের দিকে ধাবিত হতে শুরু করেছে । যখন উহুদে আল্লাহ তায়ালা পরীক্ষা নিলেন, আহবার রা ইসলামের বিরোদ্ধে প্রপাগান্ডায় নেমে পড়লো ফলে আহযাব সংঘটিত হলো (দেখুন মারেফুল কুরান শফি রাঃ সুরা আহযাব/হাশর)
আফগানে আমেরিকার সাপোর্ট আছে সমর্থন জানালে কোন সমস্যা নাই , তালেবান বিজয়ি হচ্ছে ,বাস তালেবান হক্ব, ইসলামে জিহাদ আছে ছিলো থাকবে, জিহাদের এই এই ফজিলত আছে , সক্ষমতার পরো পরিত্যগ কারি ফাছেক দুর্ভাগা,অপব্যখ্যাকারি গুমরাহ,জিহাদ অস্বীকার কারি কাফের,সবার মুখে মুখে খই ফোটে। আল্লাহ তায়ালা সুবিধাবাদি আর খাটি খাবীছ তায়্যিব পৃথক করতে চাইলেন, পরীক্ষা নিলেন, বাস সবাই ফেল করে বসে আছে। গুরাবা কালীলুন গুহা বাসি ছাড়া । আবার এই কৌশল্গত ফরজ গুপনিয়তা ও একদলের নিকট মারাত্তক আপত্তির বিষয়। নাহক্ব হওয়ার আলামত , বুখারি পড়েছে পড়য়েছে সুধু বুখার তাপ সৃষ্টি হয়েছে আর কিছু হয়নি, অন্ধ হয়েছিল। রাসুল সাঃ তাবুক ছাড়া সব গুলো যুদ্ধাভিযান ওররা বিগায়রিহা পদ্ধতি অবলম্বন করেছেন , সারিয়্যা শব্দের অর্থই/ উতপত্তিই হলো রাত্রি ভ্রমন থেকে । তারা রাতে বিচরন করত দিন লোকিয়ে থাকতো(মাবসুত...)
মুজাহেদীন হক্ব জাহের করছেন কৌসল গুপন রাখছেন ,আর এসব দ্বীনের তথাকথিত ঠিকাদার রা হক্ব গুপন করে নিজেদের জাহের ঠিক রাখছে, উভয় দল কিছু বিষয় গুপন করছে কিছু বিষয় যাহির করছে , ফা আয়্যুলফারিকায়নে আহাক্কু বিল আমনে...।

banglar omor
09-21-2016, 01:38 PM
by murabit

তখন তাকে বলা হলো রাসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াছাল্লাম কি সুন্নতের উপর আমল করেন নি? তার এতো বিপদ আসলো কেন?

হযরত!এ কথাটি আপনি বলেছিলেন না অন্য কেউ?
উত্তর দেওয়ার অনুরোধ করছি।