PDA

View Full Version : ইমাম আহমদের(রহিমাহুল্লাহ) এক ছাত্রের কবিতা



Amer ibn Abdullah
10-27-2016, 01:25 AM
এই কবিতাটি ইমাম আহমদ ইবনে হাম্বলের(রহিমাহুল্লাহ) এক ছাত্র তাঁকে শুনায়। কবিতাটি শোনামাত্রই তৎক্ষণাৎ তিনি মজলিশ থেকে উঠে ঘরে চলে যান। আর কবিতাটির প্রথম চরন পড়তে পড়তে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন। তাঁর ছাত্ররা লক্ষ্য করলেন তিনি এতই ক্রন্দন করছিলেন, মনে হচ্ছিল তিনি বুজি মরেই যাবেন।


আমার রব যদি জিজ্ঞাসেন, আমার অবাধ্যতায় লজ্জিত হও কি?
আমার সৃষ্টিকুলের সামনে পাপগুলো লুকাও, আমার সামনে নিয়ে আসো ঠিকই।
কি দিব জবাব, হায় পরিতাপ! কে বাঁচাবে আমায়
নিজেরে বুজাই সময়ে সময়ে মিথ্যামিথ্যি আশায়।
কী হবে মরার পর? কী হবে যখন দেয়া হবে কবর?
যেন আমার অশেষ আয়ু,মরন কখনো আসবে না।
কিন্তু যখন আসবে মৃত্যু, কেউ বাঁচাতে পারবে না।
চেহারাগুলো দেখে ভাববো কে দেবে মুক্তিপন??
জিজ্ঞাসিত হব আমি কি করেছি আজীবন?
কি দিব জবাব- ভুলেছি নিজের দ্বীন?
শুনতে কি পাইনি আল্লাহ্*র কালাম?
শুনতে কি পাইনি সূরা কাফ,ইয়াসিন?
জানিনাই কি কিয়ামত-হাশর-শেষ বিচারের দিন?
শুনিনাই কি মৃত্যুর পদধ্বনি?
তাওবা করছি হে রব তোমার বান্দা আমি।
অতএব কে বাঁচাবে আমায়?
আছেন শুধু মহাক্ষমাশীল রব; যিনি সত্যের দিকে দেখাবেন পথ
তোমারই কাছে এসেছি ফিরে, হে রব! করছি তাওবা তোমারই সকাশে, দাও মীযান ভারী করে।
সহজ করে দাও হিসাব আমার,তুমিই ই তো সেরা প্রভুর প্রভু বিচারক হাশরের।

নোটঃ এটা আরবি কবিতা, বাংলা অনুবাদে অবশ্যই আসল মজা পাওয়া যাবে না। তারপরেও কি আর করা ! আমার মত ভাইদের জন্য বাংলাটাই আপাতত যথেষ্ট।

hindustani mujahid
10-27-2016, 07:13 AM
জাজাকাল্লাহ