PDA

View Full Version : বদনজরের লক্ষণ এবং কিছু সত্য ঘটনা (পর্ব-৩)



banglar omor
04-22-2017, 12:23 PM
বদনজর - ৩
----
[ক]
গত পর্বে আমরা বদনজর বিষয়ে সালাফের মতামত এবং বদনজর থেকে বাঁচার প্রাথমিক উপায় জেনেছি। আজ বদনজরের লক্ষণগুলো এবং এসম্পর্কিত কিছু সত্য ঘটনা জানবো।
...
বদনজর কখনো রোগের কারণ হয়, আবার কখনো সরাসরি ক্ষতি করে।
নজর লেগে কারো জ্বর চলে আসতে পারে, ডাইরিয়া হতে পারে (নজর লেগে ডাইরিয়া হওয়া খুবই কমন ব্যাপার, গতমাসে আমার এক রিলেটিভের হয়েছিলো) আবার নজর কখনো হৃদরোগের কারণও হতে পারে। গাছের ফল নষ্ট হয়ে যেতে পারে। ইত্যাদি ইত্যাদি।
ছোটবেলায় কোনো উস্তাযের মুখে শুনেছিলাম, ইমাম বুখারি রহ. যদি জানতেন অমুক ব্যক্তির রাস্তায় দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে খাওয়ার অভ্যাস আছে তাহলে নাকি তাঁর থেকে হাদিস রিওয়ায়েত করতেন না! কারণ তাঁর খাবারের দিকে মানুষের নজর পড়তে পারে, যা স্মৃতিশক্তি দূর্বল করে দিতে পারে... এজন্য হতে পারে হাদিস বর্ণনায় সে ভুল করবে!!
(আল্লাহই ভালো জানে..)
.
[খ]
মুম্বাইয়ের একজন অভিজ্ঞ আলেম মুফতি জুনাইদ সাহেব নজর লাগার অনেকগুলো আলামত বর্ণনা করেছিলেন। যেমনঃ
.
১। শরীরে জ্বর থাকা, কিন্তু থার্মোমিটারে না উঠা।
২। কোনো কারণ ছাড়াই কান্না আসা..
৩। প্রায়সময় কাজে মন না বসা, নামায যিকর ক্লাসে মন না বসা।
৪। প্রায়শই শরীর দুর্বল থাকা, ক্ষুধামন্দা, বমি বমি ভাব লাগা।
৫। চেহারা ধুসর/হলুদ হয়ে যাওয়া।
৬। বুক ধড়পড় করা, দমবন্ধ অস্বস্তি লাগা।
৭। অহেতুক মেজাজ বিগড়ে থাকা।
৮। আত্মীয়-স্বজন বা বন্ধুদের সাথে দেখা হলেই ভালো না লাগা।
৯। মেয়েদের ক্ষেত্রে অতিরিক্ত চুল পড়া। শ্যাম্পুতে কাজ না করা।
১০। পেটে প্রচুর গ্যাস হওয়া।
১১। বিভিন্ন সব অসুখ লেগে থাকা যা দীর্ঘদিন চিকিৎসাতেও ভালো হয় না। (সর্দিকাশি, মাথাব্যথা ইত্যাদি)
১২। হাত-পায়ে মাঝেমধ্যেই ব্যাথা করা, পুরো শরীরে ব্যাথা দৌড়ে বেড়ানো।
১৩। ব্যবসায় ঝামেলা লেগে থাকা।
১৪। আপনি যে কাজে অভিজ্ঞ সেটা করতে গেলেই অসুস্থ হয়ে যাওয়া।
.
আরো কি কি যেন আছে, আমার ঠিক ইয়াদ নাই। তো যাইহোক, উল্লেখিত বিষয়গুলো এমন না যে শুধু বদনজরের কারণেই এসব হয়, অন্য কারণেও হতে পারে। তবে এরমাঝে কয়েকটা থাকলে আপনি ধরে নিতে পারেন, আপনার কিছু না কিছু সমস্যা আছে। যদি অনেকগুলো থাকে তাহলে অনেক....
.
[গ]
এবিষয়ে অনেকগুলো ঘটনা আগেরবার বলা হয়েছে, সেসব আর উল্লেখ না করি.. আমি আগের পোস্টগুলোর লিংক কমেন্টে দিয়ে দিচ্ছি। তবে সাহল ইবনে হুনাইফ রা. এর ঘটনা; যা মুয়াত্তা মালেক, মুসনাদে আহমাদ, ইবনে মাযাহ এবং নাসাঈ শরিফে আছে! সেটা এটা এখানে না বললেই নয়..
.
"সাহল ইবনে হুনাইফ রাযি. কোথাও গোসলের জন্য জামা খুলেছিলেন। উনি বেশ সুঠাম দেহের অধিকারী ছিলেন। বদরী সাহাবী আমির ইবনে রবী'আ রাযি. তাঁকে দেখতে পেয়ে বললেন, এতো সুন্দর মানুষ আমি জীবনে দেখিনি। এমনকি এত সুন্দর কোন যুবতীকেও দেখিনি। আমির রাযি. কথাটা বলার পরপরই সাহাল রাযি. সেখানে বেহুশ হয় পড়ে গেলেন। তাঁর গায়ে জ্বর চলে আসলো। মারাত্মক জ্বরে ছটফট করতে লাগলেন হযরত সাহাল রাযি.।
অন্য সাহাবিরা রাসূল সা. কে জানালেন, সংবাদ পেয়ে হুযুর সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম অবস্থা দেখতে আসলেন। সাহল রাযি. কে হঠাৎ করে এমনটা হবার কারণ জিজ্ঞেস করলে তিনি ঘটনাটা খুলে বললেন। রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তখন বললেন: "তোমরা কেন তোমাদের ভাইকে নজর দিয়ে হত্যা করছো? আমির ইবনে রবী'আকে ডেকে বললেন: তুমি যখন তাকে দেখলে, তখন আরো বরকতের দু'আ কেন করলেনা? বারাকাল্লাহ কেন বললে না?" (অর্থাৎ দুয়া করলে নজর লাগতো না)
এরপর প্রিয় নবী সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তখন আমির রাযি. কে বললেন: অজু কর! আমির রাযি. অজু করলেন। অতঃপর নবীজি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম- এর নির্দেশে অযুর পানি সাহল এর গায়ে ঢেলে দিলেন। আল্লাহর রহমতে কিছুক্ষণের মধ্যেই তিনি সুস্থ হয়ে উঠলেন।"
এটা বিশুদ্ধ সনদে বর্ণিত প্রসিদ্ধ একটি ঘটনা, যা থেকে আমরা অনেক কিছু শিখতে পারি। আমরা বুঝতে পারি, ভালো মানুষের নজরও লাগতে পারেরে, এখানে আমির ইবনে রবিয়া রা. তো বদরি সাহাবি, বদরী সাহাবিদের আগের পরের সব গুনাহ মাফ!! এরকম মানুষের নজর লেগেছে, সেখানে অন্যরা কোন ছার..
.
[ঘ]
আরেকটা হাদিস.. উম্মুল মুমিনিন উম্মে হাফসা রা. কোনো সাহাবির বাসায় বেড়াতে গিয়েছিলেন, ফিরে এসে রাসুল সা.কে ওদের হালহাকিকত শোনালেন। বললেন, ইয়া রাসুলাল্লাহ! ওই সাহাবির সন্তানরা প্রায় সময় অসুস্থ হয়ে থাকে.. রাসূল সল্লাল্লহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বললেন, "আসলে বদনজর তাদের দিকে খুব দ্রুত কাজ করে!"
আসমা রা. এর ব্যাপারেও এরকম ঘটনা পাওয়া যায়.. (হাদিসগুলো মুসলিম শরিফে আছে)
....
আমার বাড়ির একটা গল্প বলি, এবার ছুটিতে গিয়ে আম্মুকে আমার বদনজর নিয়ে লেখা আগের প্রবন্ধগুলো দেখালাম। সেখানে "বদনজর মানুষকে কবর পর্যন্ত আর উটকে রান্নার পাতিল পর্যন্ত পৌঁছে দেয়!" হাদিসটা দেখিয়ে আমি হাসতে হাসতে বললাম 'হাদিসটা মজাদার না'?!!
আম্মু দেখি মন খারাপ করে বলছে- কয়েকদিন আগে আমার একটা মুরগী মরে গেছে..
জিগাইলাম কিভাবে?
আম্মু বলছে- "সন্ধ্যায় সব মুরগিকে খাওয়ার দিয়ে আমি বারান্দায় দাঁড়িয়ে আছি, তখন ওই মুরগিটার দিকে তাকায়া বললাম ইশ! এরকম আর একটা মুরগিও হলোনা.. একটা মুরগিও এরকম বড়সড় না, আর এর মতো একটাও ডিম দেয় না... তারপর সব মুরগি কুটিরে উঠেছে, ওই বড়সড় মুরগিটাও উঠেছে। পরদিন সকালে দেখি ওই মুরগিটা আর বের হয়না! পরে কুটিরের ভিতরে তাকায়া দেখি মুরগিটা এক কোণায় মরে পড়ে আছে... একদম ভালো মুরগি, কোনো অসুখ ছিল না, আমার ওই কথাগুলা বলার সময় কি নজর লাগছিল?"
- আমি বললাম.. "হ্যা...."
........
আগের সিরিজের ঘটনাগুলোর লিংক কমেন্টে দিয়ে দিচ্ছি, চাইলে পড়ে নিতে পারেন..
.
---
চলবে ইনশাআল্লাহ.......
আগামী পর্বে বদনজরের চিকিৎসা নিয়ে আলোচনা হবে ইনশাআল্লাহ
(সংগ্রহিত)

banglar omor
04-22-2017, 12:26 PM
২য় পর্ব
https://82.221.139.217/showthread.php?6342-%E0%A6%B8%E0%A6%BE%E0%A6%B2%E0%A6%BE%E0%A6%AB%E0%A 6%A6%E0%A7%87%E0%A6%B0-%E0%A6%A6%E0%A7%83%E0%A6%B7%E0%A7%8D%E0%A6%9F%E0%A 6%BF%E0%A6%A4%E0%A7%87-quot-%E0%A6%AC%E0%A6%A6%E0%A6%A8%E0%A6%9C%E0%A6%B0-quot-(%E0%A6%AA%E0%A6%B0%E0%A7%8D%E0%A6%AC-%E0%A7%A8)
১ম পর্ব
https://82.221.139.217/showthread.php?6297-%E0%A6%AC%E0%A6%A6%E0%A6%A8%E0%A6%9C%E0%A6%B0

সুলতান মাহমুদ
04-22-2017, 01:02 PM
]মাসা আল্লাহ ভাই
বারাকাল্লাহ ফিহি
বদনজরে আক্রান্ত রোগীর চিকিৎসাও জানাবেন ইন শা আল্লাহ[/size]

Muhammad bin maslama
04-22-2017, 03:42 PM
আখি, আল্লাহ আপনার মেহনতকে কবুল করু, আমীন।
আখি, আপনি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে ধারাবাহিক আলোচনা করছেন, আপনাকে অসংখ্য শুকরিয়া। আরো কৃতজ্ঞ হতাম, যদি কমেন্ট বক্সে এবিষয়ে আমাদের শাইখদের লিখিত একটি কিতাবের নাম বলতেন, যাতে করে ব্যপকআকাড়ে ফাইদা অব্যাহতভাবে হয়।
Maassalamo.

জিহাদ ফি সাবিলিল
04-22-2017, 07:57 PM
অপেক্ষায় আছি,,,

abdullah yafur
04-22-2017, 08:10 PM
জাযাকাল্লাহ ভাই। নেক্সট পর্বের অপেক্ষায় থাকলাম ইংশা আল্লাহ।

OWN Active
04-22-2017, 08:59 PM
vai moiza pailam

উমার আব্দুর রহমা
04-22-2017, 09:18 PM
জাযাকাল্লাহ ভাই....!!!

mujahid
04-22-2017, 10:48 PM
জাযাকাল্লাহ

আবু কুদামা
04-23-2017, 10:33 AM
ভাই জাজাকাল্লাহ আল্লাহ তায়ালা আপনার লেখায় বরকত দিন করুণ আমিন।।
পরবর্তী পর্বের অপেক্ষারত আবস্থায় থাকবো।

Musafir
04-23-2017, 02:22 PM
জাযাকাল্লাহ খাইরান।

আবু জাবের
05-14-2017, 11:27 PM
ভাই! জাজাকাল্লাহ আল্লাহ তায়ালা আপনার লেখায় বরকত দিন করুণ আমিন।পরবর্তী পর্বের অপেক্ষয় রইলাম ।