PDA

View Full Version : রমজান মাসের প্রতিদিনের আলাদা ইতিহাস ।। ১ - ৫ রমজান



তাহরীদ মিডিয়া
06-03-2017, 06:01 AM
০১/ রমজান


ইব্রাহীম আলাইহিস সালামের সহীফা অবতরণ




০১/ রমজান / ২০ হি:


ইসলামের বিজয়ের বাহিনী আমীরুল মুমিনিন উমার বিন খাত্তাবের জামানায় আমর ইবনে আসের নেতৃত্বে মিসরে প্রবেশ করেন।




০১/ রমজান / ১১৪ হি:


বিলাতুশ শুহাদার যুদ্ধ বন্ধ:

মুসলমানরা ছিলেন আব্দুর রহমান গাফেক্বীর নেতৃত্বে ফ্রান্সীরা ছিল "শার্ল মার্টিল" নেতৃত্বে। যুদ্ধের স্থান ছিল ফ্রান্স। এই যুদ্ধ দশ দিন ধরে চলমান ছিল। শাবানের শেষ থেকে রমজানের শুরু পর্যন্ত, যুদ্ধ কোন পক্ষের বিজয়ের মাধ্যমে শেষ হয় নি। বরং মুসলিমরা কৌশলগত কারণে রাতের বেলা পিছনে হটে আসে এবং যুদ্ধের ময়দান ছেড়ে দেয়।




০১/ রমজান / ৬৫৪ হি:


মাসজিদে নববী আগুনে পুড়ে যাওয়া যা সয়ং আল্লাহর নবী আলাইহিস সালাম স্থাপন করেছিলেন।

তাহরীদ মিডিয়া
06-03-2017, 06:05 AM
রমজান মাসের ইতিহাস

০২/ রমজান / ১৯৯৫ খ্রি:




বসনিয়ার মুসলিমদের গণহত্যা - সার্ব্রেন্টিসা শহর


যখন পূরা বিশ্বের মুসলিমরা রমজানকে স্বাগত জানানোর প্রস্তুতি নিচ্ছিল ঠিক সেই মুহুর্তে বসনিয়ার মুসলিমরা নিজের প্রিয়জনদের দাফনের ব্যস্ত। এই শহরে সেই দিন ৪২০ জন মুসলিমকে হত্যা করে। এবং বসনিয়ার নির্যাতনে শুধু সেই শহরেই একসাথে জমা করে শহীদ করা ৮ হাজার মুসলিম পুরুষ। যাদের সবার বয়স ছিল ১৪ থেকে ৫০ এর ভিতর।

কুফুরসংঘের নেতৃত্বে বসনিয়ায় সার্বীয় সেনারা সারে তিন বছরে তিন লাখের উপর মুসলিমকে হত্যা করে। যা তাদের হিসাব অনুজায়ী। প্রকৃত হিসাব আল্লাহ তায়ালাই জানেন। এবং বড় বড় শহর ঘেরাও দিয়ে লাখ লাখ মুসলিম যুবতীদেরকে ধরে নিয়ে যায় আধুনিক ইউরুপীয় সভ্যতার ধ্বজাধারীরা।


০২/ রমজান / ৬৫৮ হি:




বিখ্যাত আইনে জালুতের যুদ্ধ শুরু


সেই যুদ্ধে মুসলিমরা মামলুকী সেনাপতি জাহের বাইবারাসের নেতৃত্বে কুতবুগার অধিনস্ত তাতার বাহিনিকে পরাজিত করেন।


০২/ রমজান /৮২ হি:

উত্তর আফ্রীকায় মুসলিমদের উপর এক পাশ থেকে রুম ও অপর পাশ থেকে বারবারদের ভয়ানক কাহানাহ উপজাতি এক সাথে আক্রমন করে। তখন সেনাপতি জাহির বিন কাইস তাদের উপর বিজয়ী না হওয়ায় মাগরবের সমস্ত দেশ বিজয়ী মহান বীর হাসসান বিন নুমান দ্বায়িত্ব নেন এবং তার হাতেই বিজয় আসে।


০২/ রমজান / ১৩২ হি:

দাউলাতে উমাইয়্যার পতন ও দাউলায়ে আব্বাসীয়ার প্রতিষ্ঠা।


০২/ রমজান

উকবা বিন নাফে' রাজি: এর হাতে ইসলামী মাগরেবের প্রথম ইলম ও সভ্যতার রাজধানী কাইরাওয়ান শহর প্রতিষ্ঠা।


০২/ রমজান / ১৪৫৩ খ্রি:

সলতান মুহাম্মাদ ফাতেহ বিজয়ী বেশে এই দিনে কুস্তানতীনিয়্যাতে প্রবেশ করেন।

তাহরীদ মিডিয়া
06-03-2017, 06:06 AM
০৩/ রমজান / ১১ হি:


রাসূল আলাইহিস সালামের কন্যা ফাতেমা রাজি: এর ওফাত।


০৩/ রমজান


আলী ও মুয়াবিয়া রাজি: এর মাঝে সিফফীনের যুদ্ধে ৫০/৭০ হাজার মুসলিম মারা যাওয়ার পর সাহাবী সাহাল বিন হানীফ তাদের মধ্যে একত্র করার চেষ্টা করেন। পরে এই দিনে তাদের মাঝে ফায়সালা সংঘঠিত হয়।


০৩/ রমজান / ১২৮০ হি:

আফ্রীকার মহান মুজাহিদ উমার ফুতি ফ্রান্সের সাথে অনেক বছর জিহাদের পর মাসিনা শহরের এক পাহাড়ের উপর প্রচন্ড যুদ্ধে কুফফাররা উনাকে শহীদ করেন।

তাহরীদ মিডিয়া
06-03-2017, 06:11 AM
৪ রমজানের ইতিহাস


৬৬৬ হি:


সলতান জাহির বাইবারাস ফান্সের থেকে এন্তাকিয়া শহর বিজয় করেন, যা ৭৫ বছর তাদের দখলে ছিল।


২৬২ হি:

বখতিয়ার বিন বুয়াহ এর সাথে রুমানদের বিরোদ্ধে যুদ্ধ।

ফকীহ আবু বকর হানাফী, আবুল হাসান রুম্মানী ও ইবনে দাক্কাল হাম্বালী এর তাহরীদে উনার ভাই আবুল কাসেম হামাদান এর নেতৃত্বে প্রচন্ড যুদ্ধ হয়। ফলে কুফফাররা পলায়ন শুর করে। কিন্তু দুই পাহাড়ের মাঝে পরার কারণে মুসলিমদের হাত থেকে পলায়ন করাও সম্ভব হয় নি।


১ হি:




সারিয়্যা সাইফুল বাহার।


রাসূল আলাইহিস সালাম হামজা রাজিয়াল্লাহু আনহুকে তিরিশ জন মুহাজির সহ শাম থেকে আসা এক কুরাইশী কাফেলাকে আক্রমনের জন্যে প্রেরণ করেন। সেই দলে আবু জাহাল সহ ৩০০ মুশরিক ছিল। কিন্তু মাজদি বিন আমরের মধ্যস্ততায় আর যুদ্ধ হয় নি।

এই যুদ্ধের পতাকাটাই ছিল আল্লাহর নবীর সর্ব প্রথম পতাকা, যা ছিল সাদা ও আবু মারসাদ কান্নান এর হাতে।


৬৯৪ হি:

দিল্লীর সর্ব প্রথম আফগানী শাষক জালালুদ্দীন ফিরুজ শাহকে হত্যা করা হয়।


৪ রমজান


জার্মানীর বিরোদ্ধে উসমানীদের যুদ্ধ ঘোষনা ৫৬ বছরের শান্তি চুক্তির পর জার্মানী উসমানীদের সিমান্তে দূর্গ নির্মানের কারনে তারা যুদ্ধ ঘোষনা করে।


১৯২৩ খ্রি:

উসমানীদের সর্ব শেষ খলিফা আব্দুল মাজীদ সানী মদিনা মুনাওয়ারাতে ইন্তিকাল করেন।

তাহরীদ মিডিয়া
06-03-2017, 06:13 AM
৫ রমজানের ইতিহাস



৫ হি :

সাহাবীরা আহযাবের যুদ্ধ্যের জন্যে প্রস্তুতি নেন।


৯৩ হি:

স্পেন বিজেতা তারেক বিন জিয়াদ স্পেন সেনাপতি রডারিকের দেড় লাখ সেনার বিরোদ্ধে "ওয়াদী লেকা" যুদ্ধে বিজয় লাভ করেন।

অপর দিকে ইসলামী সেনাবাহিনীর কমান্ডার মুসা বিন নুসাইর উত্তর আফ্রীকায় অবস্থানরত স্পেনীয় সেনাদের উপর আক্রমন করেন। যাতে মূল স্পেনে বিজয় ত্বরান্বিত হয়।


৭০২ হি:

মামলুকী সুলতান মানসুর "সাকহাব" এর যুদ্ধে তাতারদের বিরোধ্যে জয় লাভ করেন। এবং এই দিনে বিজয়ী বেশে দামেস্কে প্রবেশ করেন।


১৩৬৬ হি:

উসমানী সেনাবাহিনী প্রথম বিশ্ব যুদ্ধের সময় ইরানের তিবরীজ শহর আক্রমন করে।


৫৭৭ হি:

সলতান সাহুদ্দীন আয়্যুবী ইস্কান্দারিয়া শহরে ইসলামী নৌ সেনাবাহিনী ঘঠনের আদেশ দেন।


৫৩৪ হি:

মজাহিদ কমান্ডার ইমাদুদ্দীন জংগী "হুরান" শহরে অবরোধের জন্যে এগিয়ে যান। তিনি খ্রিষ্টানদের দিমাশকে জুলুমের ব্যপারে শুনতে পান, এবং ফ্রান্স তাদের সাহায্যে আসার আগেই তিনি ফ্রান্সের উপর আক্রমনের জন্যে এগিয়ে আসেন। তারা উনার আসার খবর শুনেই ভয়ে নিজের দেশ থেকে বেরই হয় নি।


১৩৬৭ হিঃ / ১১ জুলাই ১৯৪৮ খ্রিঃ


ফিলিস্তীনের লুদ শহরে মুসলিমদেরকে গণহত্যা


জায়ানবাদী ইয়াহুদী সন্ত্রাসী মোশে দায়ান ফিলিস্তিনের "লুদ" শহরে ভয়াবহ গণহত্যা চালায়। ইহুদিবাদীরা নির্বিচার গুলি বর্ষণ করে হত্যা করেছিল ওই শহরের নিরপরাধ ফিলিস্তিনি বেসামরিক নাগরিকদের। ইহুদিবাদী সন্ত্রাসীরা লুদ শহরে ফিলিস্তিনিদের ঘরে ঘরে অভিযান চালিয়ে ওই হত্যাযজ্ঞ চালায়। মুসলিমরা মাসজিদে আশ্রয় নিলে তারা সেখানেও আক্রমন করে। সর্ব শেষ ফুটবল মাথে জড়ো করে সমস্ত যুবককে ফাসীতে ঝুলায়। ওই গণহত্যা অভিযানে ৪২৬ জন ফিলিস্তিনি শহীদ এবং বহু সংখ্যক আহত হয়েছিল। এর পর তাদেরকে কোন মাল-সামানা ছাড়া আধা ঘন্টার ভিতর পায়ে হেটে শহর ত্যাগ করার আদেশ দেয়, ফলে রাস্তায় খাবার না পেয়ে অনেক নারী-শিশু মারা যায়।

ইলম ও জিহাদ
06-03-2017, 11:47 AM
jazakallah.

Taalibul ilm
06-03-2017, 08:49 PM
সুবহানাল্লাহ, অনেক গুরুত্বপূর্ন কিছু তথ্য।

Fatima
06-04-2017, 03:53 AM
আমাদের বর্তমান মুসলমান কত রমজান কাটায় কিন্তু কোন ইতিহাস হয় না।

Nasir
06-04-2017, 08:34 AM
Zajakumullah

ওসামার সৈনিক
06-04-2017, 08:29 PM
জাযাকাল্লাহ ভাই। অনেক সুন্দর পরিবেশনা। মুসলমানদের এই ইতিহাস জানা আবশ্যক। আল্লাহ ভাইদের মেহনত কবুল করুন।

Abdullah Ibnu Usamah
06-05-2017, 10:43 AM
মাশাআল্লাহ, জাযাকুমুল্লাহ! সামনের দিনগুলোর ইতিহাসও অব্যাহতভাবে তুলে ধরার অনুরোধ রইলো!!

Qital team
05-03-2019, 04:30 PM
সামনে রামাদ্বান মাস তাই থ্রেডগুলো
মূল ফোরামে আসুক তাই কমেন্ট করছি।

উম্মাহ যদি কিছু শিক্ষা নিতে পারে।

বদর মানসুর
05-03-2019, 06:50 PM
মাশা-আল্লাহ! খুব চমৎকার একটি পরিবেশনা।
আল্লাহ সুব. আপনাদের মেহনতকে কবুল করুন ও উত্তম যাঝা দান করুন,আমীন!

abu ahmad
05-04-2019, 04:03 PM
মাসাআল্লাহ, আলহামদুলিল্লাহ। অনেক সুন্দর উপস্থাপনা। আল্লাহ তাআলা আপনাদের মেহনতকে কবুল করে নিন এবং জাযায়ে খাইর দান করুন। আমীন

Bara ibn Malik
05-04-2019, 09:11 PM
খুব গুরুত্বপূর্ণ বিষয়,আল্লাহ কবুল করুন,আমীন।

আদনানমারুফ
05-05-2019, 11:53 AM
জাযাকুমুল্লাহ ভাইয়েরা, সুন্দর হয়েছে, বিভিন্ন পত্রিকায় ‘আজকের এই দিনে’ শিরোনামে একটি কলাম থাকে, সেখানে ঐ দিনে ঘটা বড় ঘটনাগুলো তুলে ধরা হয়, আমরাও যদি এরকম কোন উদ্যোগ নেই, পুরো বছরের যে দিনগুলোতে মুসলমানদের বড় কোন বিজয় বা ট্রাজেডী ঘটেছে সেগুলো এ জাতীয় কোন শিরোনামে পেশ করি, তাহলে আমাদের ইতিহাস সচেতনতা তৈরী হবে, ইতিহাসের ব্যাপারে আমাদের অজ্ঞতা দূর হবে, আল্লাহ আমাদের তাওফীক দান করুন।

মুক্তির পথে
05-05-2019, 04:36 PM
জাযাকাল্লাহ ভাই।

abu bakr al qasim
05-06-2019, 06:41 AM
জাযাকাল্লাহ, খুবই উত্তম পোষ্ট। রমাযানের দাওয়াত বা আলোচনায় সাধারনদের মাধে এইগুলো বলা যেতে পারে। তাতে ইসলামের প্রতি চিন্তা ভাবনায় দাগ কাটতে পারে ইনশাল্লাহ। আল্লাহ আপনার মেহেনত কবুল করুন।