PDA

View Full Version : রেজাউল করিম সিদ্দিকী হত্যা এবং দাওলাতুল খারিজীদের পথভ্রষ্টতার পরিচয়



Egol
04-25-2016, 06:53 AM
অধ্যাপক এএম রেজাউল করিম সিদ্দিকীকে গত দুইদিন আগে খুন করে দায়ভার গ্রহন করেছে দাওলাতুল খাওয়ারিজ।

এটি এখন সম্পূর্ণ প্রমানিত যে, অধ্যাপক এ এম রেজাউল করিম সিদ্দিকী একজন শাতিমীর রাসুল (সাঃ) ছিলেন না এমন কি তিনি নাস্তিক ও ছিলেন না। এটি তার রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকর্মী, ছাত্র, তার প্রতিবেশী এমনকি তার পরিবার থেকেও জানা গেছে। বাস্তবতা এটাই যে, সে একজন তিনি একজন প্রাক্টিসিং মুসলিম ছিলেন না কিন্তু জুম্মার নামাজ পড়তেন এবং অন্যান্য ব্লগার বা রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক শফিকুল, যাকে আল-কায়েদার বীর সিংহরা হত্যা করেছিল তাদের মতো ইসলাম, রাসুল (সাঃ) এবং শরিয়ায়হ নিয়ে ব্যাঙ্গ-বিদ্রূপ বা শরিয়াহ পালনে বাধাও দেন নাই।

যতদূর জানা গেছে, সে সঙ্গীত প্রিয় ছিল এবং বাঘমারাতে একটি সঙ্গীতের স্কুলও খুলেছিল। তার কোন লেখা, মন্তব্য প্রমান করে না যে তিনি শাতিমীর রাসুল (সাঃ) ছিলেন কিংবা নাস্তিক্যবাদ প্রচার করেছেন। যদি সে নাস্তিক্যবাদ প্রচারই করে থাকে তাহলে অবশ্যই দাওলাতুল খারিজীদের উচিৎ হবে, তার কু-কর্ম সাধারণ মানুষের কাছে তুলে ধরা যাতে সবাই সেটা জানতে পারে।

বাংলাদেশে দাওলাতুল খাওয়ারিজিদের এই ধরনের রক্তপাত এটাই প্রথম না, তারা জাপানী কুনিও কেও হত্যা করেছিল নাস্তিক বলে কিন্তু আসলে সে মুসলিম ও হয়েছিল এবং মসজিদে প্রায় নামাজ ও পড়তো।

বাংলাদেশে দাওলাতুল খাওয়ারিজিদের উপস্থিতি খুব কম তারপরও তাদের এমন রক্তপাত শুধু জিহাদেরই ক্ষতি করছে না বরং তারা ইসলামের ও ক্ষতি করছে। ৫-১০ জনের পথভ্রষ্ট jmb এর ভাইদের এহেন কাজ থেকেই উপলব্ধি করুন ইরাকে ও সিরিয়াতে যেখানে তাদের বড় একটা উপস্থিতি আছে, সেখানে কি পরিমাণ অবৈধ রক্তপাত তারা ঘটাচ্ছে এবং জিহাদ ও ইসলামের অপূরণীয় ক্ষতি তারা করে চলেছে।

KhawarijNews
04-25-2016, 08:34 AM
More info :-

নিহত শিক্ষকের চাচাতো বোন স্কুলশিক্ষক জাহানারা বেগম বলেন, রেজাউল করিম গ্রামে এসে বিভিন্ন ধর্মীয় অনুষ্ঠানে যোগ দিতেন। মসজিদ-মাদ্রাসায় দানও করতেন। ধর্মের বিরুদ্ধে কোনো বক্তব্যও দেননি।
রেজাউল করিমের গ্রামের বাড়ির প্রতিবেশী কলেজশিক্ষক জহুরুল হক বলেন, ধর্মের প্রতি কখনো বিদ্বেষমূলক কোনো মনোভাব তাঁরা লক্ষ করেননি। তিনি দরগামাড়িয়ার বহু বছরের ইসলামি তাফসির কোরআন মাহফিলের সহসভাপতি ছিলেন, আবার কোনো বছর পৃষ্ঠপোষকের দায়িত্ব পালন করেন। এমনকি দানও করেছেন।
রেজাউল করিমের সঙ্গে দীর্ঘ ৪২ বছরের পরিচয় ইংরেজি বিভাগেরই আরেক অধ্যাপক জহুরুল ইসলামের। কলেজজীবন থেকে তাঁরা একসঙ্গে আছেন। প্রথম আলোকে তিনি বলেন, রেজাউল মূলত কবিতা পড়াতেন। গান করা, সেতার বাজানো, ভিডিওগ্রাফি ও খেলাধুলার প্রতি রেজাউলের খুব আকর্ষণ ছিল। ধর্ম বা ধর্মীয় বিশ্বাস নিয়ে তিনি কখনো কোনো মন্তব্য করেননি।


Source (http://www.prothom-alo.com/bangladesh/article/840199/%E0%A6%A6%E0%A7%81%E0%A6%87-%E0%A6%A6%E0%A6%BF%E0%A6%A8%E0%A7%87-%E0%A6%95%E0%A6%BF%E0%A6%9B%E0%A7%81%E0%A6%87-%E0%A6%AA%E0%A6%BE%E0%A7%9F%E0%A6%A8%E0%A6%BF-%E0%A6%AA%E0%A7%81%E0%A6%B2%E0%A6%BF%E0%A6%B6)

আহমাদ মুসা
04-25-2016, 10:35 AM
More info :-



Source (http://www.prothom-alo.com/bangladesh/article/840199/%E0%A6%A6%E0%A7%81%E0%A6%87-%E0%A6%A6%E0%A6%BF%E0%A6%A8%E0%A7%87-%E0%A6%95%E0%A6%BF%E0%A6%9B%E0%A7%81%E0%A6%87-%E0%A6%AA%E0%A6%BE%E0%A7%9F%E0%A6%A8%E0%A6%BF-%E0%A6%AA%E0%A7%81%E0%A6%B2%E0%A6%BF%E0%A6%B6)

দাওলাতুল খাওয়ারেজী আবারও আমাদের চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিল তাদের মানুষ হত্যা করার জন্য কোন দলিল প্রমাণ লাগে না। মিডিয়াতে নিজেদের উপস্থিতি, ইরাকে তাদের বরকর্তাদের মনরঞ্জন আর নিজেদের ডাউন হয়ে যাওয়া ব্যাটারি চার্জ দেওয়াই কাউকে হত্যা করার জন্য যথেষ্ট।

এই হত্যাকান্ড যেন কোন মুযাহিদ ভাই সমর্থন না দেন সে ব্যাপারে আমাদের সতর্ক থাকতে হবে। নতুবা আম মুসলিমদের মাঝে সকল জিহাদী তাঞ্জিমের ব্যাপারেই বীরুপ ধারণা সৃষ্টি হতে পারে।

Egol
04-25-2016, 01:58 PM
দাওলাতুল খাওয়ারেজী আবারও আমাদের চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিল তাদের মানুষ হত্যা করার জন্য কোন দলিল প্রমাণ লাগে না। মিডিয়াতে নিজেদের উপস্থিতি, ইরাকে তাদের বরকর্তাদের মনরঞ্জন আর নিজেদের ডাউন হয়ে যাওয়া ব্যাটারি চার্জ দেওয়াই কাউকে হত্যা করার জন্য যথেষ্ট। ।

১০০% একমত।

Ibne Islam
04-25-2016, 08:44 PM
হত্যার নেশা পুরন করতে জিহাদি জযবার অপব্যবহার আরকি......!

rana
04-25-2016, 09:01 PM
এখন মানুষের কাছে খাওয়ারিজদের মুখুশ উন্মুচন হয়ে যাবে .
খাওয়ারিজদের আত্নপ্রকাশে হক বাতিল সহজে চিন্তে পারা যাবে .
আল্লাহ আমাদের মুজাহিদ ভাইদের হেফাজত করুন.
aqis

salahuddin aiubi
04-25-2016, 09:36 PM
কত নির্বোধ এই খারিজীদের দল!! কিভাবে একজন মুসলিমকে হত্যা করে! আর দেশের সমস্ত মুসলিমদের দৃষ্টিভঙ্গিটা নষ্ট করে। সত্যি!!! এগুলো একদল পাগল ছাড়া কিছুই না!! আল্লাহ এই জাহান্নামের কুকুরদের উপর অভিশম্পাত করুন!!!!